Gmail! | Yahoo! | Facbook

মির্জা ফখরুলের মায়ের ইন্তেকাল

FacebookTwitterGoogle+Share

Fatima Aminঢাকা, ১২ এপ্রিল ২০১৮ঃ বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের মা ফাতিমা আমিন ইন্তেকাল করেছেন। চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুপুর ১২টার দিকে বারডেম হাসপাতালে তিনি মারা যান।
ফখরুলের ব্যক্তিগত সহকারী মোহাম্মদ ইউনুছ একথা জানান।

এর আগে গত ১ মার্চ গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় ইবরাহিম কার্ডিয়াক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ওই দিন বিএনপি মহাসচিবের একান্ত সহকারী ইউনুস আলী জানান, ফাতিমা আমিন উত্তরায় ছেলের বাসায় অসুস্থ হয়ে পড়লে অ্যাম্বুলেন্সে করে তাকে দ্রুত হাসপাতালে নেওয়া হয়।

৮৬ বছর বয়সী ফাতিমা আমিন বার্ধক্যজনিত নানা রোগে আক্রান্ত ছিলেন।

ইবরাহিম কার্ডিয়াক হাসপাতালে অধ্যাপক এম এ রশিদের তত্ত্বাবধানে তার চিকিৎসা চলছিল। ফখরুলের বাবা মরহুম মির্জা রুহুল আমিন আশির দশকে এইচ এম এরশাদ সরকারের মন্ত্রী ছিলেন।

আজ বৃহস্পতিবার বাদ মাগরিব গুলশানে আজাদ মসজিদে নামাজে জানাযা শেষে আগামীকাল বাদ আসর ঠাকুরগাঁও হাইস্কুল মাঠে নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হবে। এরপর পারিবারিক গোরস্থানে মরহুমার লাশ তার স্বামীর পাশে সমাহিত করা হবে বলে জানিয়েছেন বিএনপির চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান। আজ রাতেই সড়কপথে মরহুমার লাশ নিয়ে যাওয়া হবে ঠাকুরগাঁওয়ে।

বিএনপি মহাসচিবের মায়ের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের, বিকল্প ধারা বাংলাদেশের সভাপতি ও বাংলাদেশের সাবেক প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী, গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন, লিবারেল ডেমোক্র্যাটিক পার্টির (এলডিপি) সভাপতি কর্নেল অলি আহমদ, জাসদ (জেএসডি) সভাপতি আ স ম আব্দুর রব, নাগরিক ঐক্যের মাহমুদুর রহমান মান্না, বিজেপি সভাপতি ব্যারিস্টার আন্দালিব রহমান পার্থ প্রমুখ।

তরিকুলের শোক

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য, সাবেক মন্ত্রী তরিকুল ইসলাম মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের ফাতিমা আমিনের ইন্তিকালে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। এক শোকবার্তায় তিনি বলেন, মরহুমার এই মৃত্যুতে আমি গভীরভাবে শোকাহত। মহান আল্লাহ এ মহীয়সী নারীকে বেহেশত নসিব করুন- এ আমার প্রার্থনা। একইসাথে শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে তিনি বলেন, আল্লাহপাক তাদেরকে এ শোক কাটিয়ে ওঠার তৌফিক দিন।

মন্তব্য